যার হিসাব নেয়া হবে তার ধ্বংস অনিবার্য

সাইদুর রহমান : প্রতিটি মানুষকে যাবতীয় কর্মের হিসাব দিতে হবে। তারপর পাপ-পূণ্যের আধিক্যের ভিত্তিতে পরিণতি নির্ধারিত হবে। দুনিয়াতে প্রভাব-প্রতিপত্তি খাটিয়ে হিসাব থেকে রেহাই পাওয়া যায়, কারো সুপারিশ পেলে হিসাব মাফ হয়। কিন্তু হাশরের ময়দানে না কাজে আসবে কোনো সুপারিশ আর না থাকবে প্রভাব-প্রতিপত্তি। একমাত্র আল্লাহ পাক যেসব মুমিন বান্দাদের নিজ রহমতে ঢেকে নিবেন তাদের নামেমাত্র হিসাব নিবেন। কিন্তু যার হিসাবের বিস্তারিত বা যাচাই করবেন তার ধ্বংস অনিবার্য। এমনটিই হাদীসে বলা হয়েছে।

হিসাব নিকাশের বাস্তবতার বিবরণ নামে হাদীসে এসেছে, আয়িশা (রা.) থেকে বর্ণিত; রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, কিয়ামতের দিন যার হিসাব যাচাই করা হরে তার আযাব অবধারিত। আমি প্রশ্ন করলাম, আল্লাহ তায়ালা কি বলেন নি, “তার হিসাব-নিকাশ সহজেই নেয়া হবে”। একথা শুনে তিনি বললেন, এ তো হিসাব নয় বরং এ তো শুধু নামে মাত্র পেশ করা। কারণ কিয়ামতের দিন যার হিসাব যাচাই করা হবে তার আযাব অবধারিত। মুসলিম হাদীস নং ৬৯৬১

আরেক হাদীসে এসেছে, আয়িশা (রা.) নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে বর্ণনা করে বলেন, যারই হিসাব যাচাই করা হবে সে ধ্বংস হয়ে যাবে। এ কথা শুনে আমি প্রশ্ন করলাম, আল্লাহ কি সহজ হিসাবের কথা বলেন নি? তিনি বললেনঃ এ তো শুধু নামে মাত্র পেশ করা। কারণ যার হিসাব যাচাই করা হবে সে ধ্বংস হয়ে যাবে। মুসলিম হাদীস নং ৬৯৬৩