ভিনেগারের কিছু ব্যতিক্রমী ব্যবহার

নাসরিন বৃষ্টি: শুধুমাত্র রান্নার কাজ ছাড়াও ভিনেগার রূপচর্চার ক্ষেত্রে ও গৃহস্থালি বিভিন্ন কাজেও ব্যবহার করা যায় অনায়াসে।

জেনে নিন ভিনেগারের কিছু ব্যতিক্রমী ব্যবহার সম্পর্কে:

* বোতল থেকে আঠালো প্রাইস ট্যাগ দূর করার জন্য ভিনেগার স্প্রে করে ঘষে নিন। নিমিষেই উঠে যাবে ট্যাগ।

* কাপড়ের জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে পারেন ভিনেগারের সাহায্যে। ভিনেগার মিশ্রিত কুসুম গরম পানিতে জুতা ভিজিয়ে রাখুন কয়েক ঘণ্টা। কুসুম গরম পানি দিয়ে ভালো করে ধুয়ে কড়া রোদে শুকান। গায়েব হয়ে যাবে জুতার বাজে গন্ধ।

* শিশুদের ফিডার অথবা পানি খাওয়ার বোতল জীবাণুমুক্ত রাখতে পরিষ্কার করতে পারেন ভিনেগার দিয়ে। কুসুম গরম পানিতে ভিনেগার মিশিয়ে ফিডার ও নিপল আলাদা করে ডুবিয়ে রাখুন। কিছুক্ষণ পর গরম পানি দিয়ে ধুয়ে নিন।

* কাপড়ে কালির দাগ লাগলে স্পঞ্জ ভিনেগারে ভিজিয়ে ঘষে নিন দাগের উপর। কিছুক্ষণ পর পরিষ্কার করে ফেলুন কাপড়। দূর হবে দাগ।

* রুম থেকে সিগারেটের গন্ধ দূর করার জন্য একটি ছোট পাত্রে ভিনেগার নিয়ে রেখে দিন ঘরের কোণে। কিছুক্ষণের মধ্যেই দূর হবে সিগারেটের গন্ধ।

* রান্নাবান্নার কাজ শেষে দেখলেন পেঁয়াজ অথবা রসুনের তীব্র গন্ধ হাত থেকে যাচ্ছে না। তখন পেঁয়াজ, রসুন অথবা কাঁচা মাছের দুর্গন্ধ দূর করতে চমৎকার কাজ করে ভিনেগার।  হ্যান্ডওয়াশ দিয়ে হাত ধুয়ে পানি দিয়ে পরিষ্কার করুন। এবার ভিনেগার দিয়ে হাত ধুয়ে নিন। শেষে কুসুম গরম পানি দিয়ে পরিষ্কার করুন হাত। দূর হবে দুর্গন্ধ।

* রূপার গয়না পরিষ্কার করতে সাদা ভিনেগারের সঙ্গে ২ টেবিল চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে ভিজিয়ে রাখুন ৩ ঘণ্টা। তারপর পরিষ্কার করে ফেলুন। ফিরে আসবে গয়নার জৌলুস।

* বেসিন পরিষ্কার করতে পারেন ভিনেগারের সাহায্যে। বেসিনে সাদা স্প্রে করে লেবুর রস ছিটিয়ে দিন। কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে ঘষে ঘষে পরিষ্কার করে ফেলুন।

* জানালার গ্রিলের মরিচা দূর করতে নরম কাপড় ভিনেগারে ডুবিয়ে মুছে নিন।

* চশমার গ্লাসের দাগ দূর করতে সাদা ভিনেগার স্প্র করে নরম কাপড় দিয়ে মুছে নিন।