সাতক্ষীরায় যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে হত্যা

শেখ ফরিদ আহমেদ ময়না,সাতক্ষীরা : সাতক্ষীরার তালায় যৌতুকের দাবিতে লক্ষ্মীরানী দাস (২৫) নামে এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে গৃহবধূর স্বামীসহ তার পরিবারের সদস্যরা। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে উপজেলার তেরছি গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

নিহত লক্ষ্মীরানী দাস ওই গ্রামের বিপুল চন্দ্র দাসের স্ত্রী ও কেশবপুর উপজেলার অসীম কুমার দাসের মেয়ে।

লক্ষ্মীরানী দাসের দাদু গোরা চাদ বসু জানান, বিপুল যৌতুকের দাবিতে প্রায় তার নাতনীকে নির্যাতন করতো। এরই ধারাবাহিকতায় রাতে বিপুল, তার বড় ভাই ও বড় ভাইয়ের স্ত্রীসহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা লক্ষ্মীরানী দাসকে বেধে পিটিয়ে হত্যা করে প্রচার দেয় সে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

লোকমুখে খবর পেয়ে রাত সাড়ে ১২টার দিকে গিয়ে আমরা দেখি লক্ষ্মীরানীকে বারান্দায় শুইয়ে রাখা হয়েছে। তার শরীরের হাটু, গলা, মাথা, নাক সহ বিভিন্ন অংশে পিটিয়ে থ্যাতলানো, রক্ত ছড়িয়ে পড়েছে।

পুলিশ আজ সকালে তার মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করে।

তালা থানার সেকেন্ড অফিসার উপ-পরিদর্শক (এস.আই) রফিকুল ইসলাম জানান, প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে গৃহবধূ লক্ষ্মীরানী কে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

এ ঘটনায় লক্ষ্মীরানীর পরিবার একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। তিনি আরো জানান, আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।