শিল্পমন্ত্রীকে ভিয়েনায় ফুলেল শুভেচ্ছা

আনিসুল হক, ভিয়েনা (অষ্ট্রিয়া) থেকে: অষ্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় জাতিসংঘ শিল্প উন্নয়ন সংস্থা (ইউনিডো) আয়োজিত স্বল্পোন্নত দেশগুলোর মন্ত্রী পর্যায়ের সপ্তম সম্মেলনে (এলডিসি) বাংলাদেশের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিতে ৩দিনের সরকারি সফরে ভিয়েনা এসেছেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু এমপি। ২২ নভেম্বর রাতে এমিরেটস এয়ারলাইন্সে ভিয়েনা আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে এসে পৌঁছান তিনি।
বিমান বন্দরে তাঁকে ফুলের তোড়া দিয়ে স্বাগত ও শুভেচ্ছা জানান সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক, অষ্ট্রিয়া প্রবাসী মানবাধিকার কর্মী, লেখক, সাংবাদিক এম. নজরুল ইসলাম, অষ্ট্রিয়া আওয়ামী লীগের সভাপতি খন্দকার হাফিজুর রহমান নাসিম, সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম কবির, বাঙালি-অষ্ট্রিয়ান হিন্দু কালচারাল অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক রুহী দাস সাহা, অষ্ট্রিয়া আওয়ামী লীগ নেতা সফিকুল ইসলাম, নয়ন হোসেন, ইমরুল কায়েস, গাজী মোহাম্মদ, লুৎফর রহমান সুজন, ইমরান মজুমদার, কামাল পারভেজ, ইয়াসিম মিয়া বাবু, হৃদয় ইসলাম, মুন্না ইসলাম প্রমূখ।

ঐসময় বিমান বন্দরে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ দূতাবাস ও স্থায়ী মিশন ভিয়েনার রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর এবং কাউন্সেলর ও দূতালয় প্রধান রাহাত বিন জামান।

২৩ ও ২৪ নভেম্বর ভিয়েনা ইন্টারন্যাশনাল সেন্টারে এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। ইউনিডোর মহাপরিচালক লি ইয়ং এর আমন্ত্রণে এ সফরে এসেছেন শিল্পমন্ত্রী।

সম্মেলনে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বর্তমান সরকারের আমলে বাংলাদেশের অর্জিত অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ও বৈচিত্র্যকরণ, শিল্পায়ন, কর্মসংস্থান সৃষ্টি, শিল্প, বাণিজ্য ও বিনিয়োগনীতি, অবকাঠামোর উন্নয়ন, সবুজ প্রযুক্তির ব্যবহার ইত্যাদি সম্পর্কে তুলে ধরবেন।

সম্মেলনে এলডিসিভুক্ত দেশগুলোর কাঙ্খিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনে উদ্ভাবনী অর্থায়ন সমাধান, বেসরকারিখাতের অংশগ্রহণ বৃদ্ধি এবং সরকারি-বেসরকারি অংশীদারিত্ব জোরদারের বিষয়ে উপস্থিত মন্ত্রী ও নীতিনির্ধরকরা আলোচনা করবেন।

২৪ নভেম্বর রাতে তাঁর দেশের উদ্দেশ্যে ভিয়েনা ছাড়ার কথা রয়েছে। এই সফরকালে তিনি বঙ্গবন্ধু ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ ইউনেস্কোর ওয়াল্ড ডকুমেন্টারি হেরিটেজ হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়ায় ভিয়েনায় প্রবাসী বাঙালিদের আনন্দ সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।