মানুষ নামের কিছু প্রাণী ধারা আক্রান্ত বিপন্ন মানুষ

সামস তাব্রীজ: আজ আমরা যে বিপন্ন মানুষের কথা বলছি তারা কিন্তু কোন প্রকৃতিক দূযোর্গ বা বন্যা ধারা বিপন্ন হয়নি। আমরা যে বিপন্ন মানুষের কথা বলছি তারা মানুষ নামের কিছু প্রাণী ধারা এমন একটা অবস্থানে যেতে বাধ্য হচ্ছেন যেখানে বিপন্ন মানুষ গুলো কোন প্রকার আশার আলো দেখতে পাচ্ছেন না।

রবিবার রাতে সময় টিভির সম্পাদকীয় অনুষ্ঠানে এমন মন্তব্য করেন মানবাধিকার কর্মী অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন সাবেক আইজিপি ড. এম এনামুল হক ও একুশে টেলিভিশন প্রধান সম্পাদক মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল।

সুলতানা কামাল আরো বলেন, ২০০৪সালে যখন র‌্যাব গঠিত হলো তখন আমরা দেখেচ্ছি যে কিছু হত্যাকান্ডের মধ্যে দিয়ে আমাদের কিছু কিছু সমস্যার সমাধানের চেষ্টা চলেছে। তার পরর্বতি সময় আমরা দেখেচ্ছি যে হত্যাকান্ডের ঘটনা হয়তো কিছুটা কমে এসছে কিন্তু আইনশৃংক্ষলা বাহিনীর বিশেষ করে র‌্যাবের বিরুদ্ধে গুম, খুনের অনেক অভিযোগ এসেছে। তখন আমরা তেমন কোন সমাধান দেখতে পাইনি কিন্তু পরর্বতি সময় কিছুটা হলেও কমেছে। আমার সেই সময় এমন কথাও উঠেছিল যে আইনশৃংক্ষলা বাহিনীর বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উঠেছে সেটি তাদের নাম দিয়ে অন্য কেউ করছে। আমার অনেকে নিজে থেকে লুকিয়ে থেকে সরকারকে বির্বরত্য করতে চাইছে। গুমের আতঙ্ক মানুষের মধ্যে ভয়াবহ ত্রাস সৃষ্টি করেছে। অনেকের মতে বিনা পরোয়ানায় আটকের ক্ষেত্রে ২০১৬ সালে উচ্চ আদালতের নির্দেশনা মানলে পরিস্থিতির উন্নতি হতো।

তিনি আরো বলেন, “পাশাপাশি তাকে কখন গ্রেপ্তার করা হয়েছে আর কোথা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এগুলিও জানাতে হবে। আমার জানা মতে এ দিকনির্দেশনাগুলো অনেক ক্ষেত্রেই ঠিকমতো পালন করা হচ্ছে না এবং গুম সম্পর্কিত আমরা যে তথ্য পাই সেই ক্ষেত্রে পালন করা হয়েছে তাতো মনে হয় না। পালন হলে তো গুম পর্যন্ত ঘটনাটা যেত না”