বঙ্গবন্ধুর ভাষণকে স্বীকৃতি, সাতদিনের কর্মসূচি আ. লীগের

প্রতিবেদক : জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি সংস্থা (ইউনেস্কো) জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্ব ঐতিহ্যের দলিল (ওয়ার্ল্ডস ডকুমেন্টারি হেরিটেজ) হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ায় কর্মসূচি পালন করবে আওয়ামী লীগ। এ উপলক্ষে সারা দেশে সাতদিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে দলটি।

বুধবার আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সম্পাদকমণ্ডলীর এক জরুরি সভায় এই কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়। আগামী ৩ নভেম্বর থেকে কর্মসূচি শুরু হবে। আগামী ৯ নভেম্বর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে নাগরিক সমাবেশের মাধ্যমে তা শেষ হবে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

কর্মসূচির প্রথম দিন অর্থাৎ ৩ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু ভবনে জমায়েত এবং জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ। ৪ নভেম্বর দেশব্যাপী বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ সম্প্রচার ও সারা দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে র‌্যালি। ৫ নভেম্বর সারা দেশের মসজিদ, মন্দির, গির্জা ও প্যাগোডায় বিশেষ দোয়া প্রার্থনা। ৬ নভেম্বর রাজধানী ঢাকা ব্যতীত সারা দেশে আনন্দ শোভাযাত্রা ।

৭ নভেম্বর দেশব্যাপী আলোচনা সভা ও সেমিনারের আয়োজন করা হবে। পরের দিন ৮ নভেম্বর সারা দেশে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন। ৯ নভেম্বর বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চ ভাষণের স্মৃতি-বিজড়িত সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে (রেসকোর্স ময়দান) নাগরিক সমাবেশ।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের আগামী ৩ নভেম্বর থেকে ৯ নভেম্বর পর্যন্ত আওয়ামী লীগ ঘোষিত সাত দিনব্যাপী কর্মসূচি সারা দেশের প্রতিটি জেলা, মহানগর, উপজেলা, থানা, পৌর, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ে পালনের জন্য আওয়ামী লীগের সহযোগী, ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনসহ সর্বস্তরের জনগণের প্রতি বিনীত অনুরোধ জানিয়েছেন।

-এনটিভি