নিহত সাইফুল নিরাপরাধ শেফ, তবুও জঙ্গি হামলার আসামি

vlcsnap-2016-07-11-12h37m41s47গাজী মিরান : গুলশানের আর্টিজান রেস্তোরাঁয় হামলার ঘটনায় জঙ্গি হিসেবে মামলায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে রেস্তোরাঁটির শেফ সাইফুল চৌকিদারকে। অথচ পরিবার বরাবরই দাবি করে আসছেন নিহত সাইফুল জঙ্গি নয় রেস্তোরাঁর শেফ। এদিকে, বেশ কয়েকদিন পেরিয়ে গেলেও মিলছেনা সাইফুলের লাশ। পুলিশের পক্ষ থেকেও দেওয়া হচ্ছে না কোনো তথ্য।
শরীয়তপুরের সাইফুল চৌকিদার কাজ করতেন ঢাকার অভিজাত এলাকা গুলশানের হোটেল আর্টিজানের পাচক হিসেবে। কিন্তু শেষ পরিণতি জঙ্গি হামলার আসামি। যা এখনো মানতে পারছেন না সাইফুল চৌকিদারের পরিবার।
সদস্যদের দাবি পরিবারের ভরণ পোষণের দায়িত্ব ছিল সাইফুলের। তাই জার্মান ফেরত সাইফুল চাকরি নেন গুলশানের হোটেল আর্টিজানে। কিন্তু গত ১ তারিখের জঙ্গি হামলায় নিহত হওয়ার পর জঙ্গি সন্দেহে অন্যদের সাথে আসামি করা হয় তাকেও। এর পর মামলা থেকে নাম কাটাতে স্থানীয় প্রতিনিধি এমনকি সংসদ সদস্যেরও প্রত্যয়ন পত্র নেয়া হলেও হয়নি কোনো সুরাহা।
এমনকি সাইফুলের মরদেহ পওয়া নিয়েও তৈরি হয়েছে ধোঁয়াশা। এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় ঘুরেও মিলছেনা কোনো আশা। কোনো খোঁজও দিতে পারছে না রাজধানীর গুলশান থানার পুলিশ কর্মকর্তারাও। পরিবারের দাবি গরীব বলে আমাদের কোনো দাম নেই, আমরা আমাদের সাইফুলের লাশ ফেরত চাই।
সূত্র : যমুনা টেলিভিশন